তৃণমূল প্রশিক্ষণ কর্মসূচি থেকে বাদ পড়লো সম্ভাবনাময় দাবা

তৃণমূল প্রশিক্ষণ কর্মসূচি থেকে বাদ পড়লো সম্ভাবনাময় দাবা
বিশেষ সংবাদদাতা
চেসবিডি.কম
ঢাকা : ১৩ মে ২০১৯

তৃণমূল থেকে বাছাইকৃত প্রতিভাবান খেলোয়াড়দের দীর্ঘমেয়াদি প্রশিক্ষণের মাধ্যমে আগামীতে আন্তর্জাতিক পর্যায় থেকে সাফল্য তুলে আনার যে পরিকল্পনা করেছে যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয়, সেই পরিকল্পনা থেকে বাদ পড়েছে সম্ভাবনাময় দাবা।

দাবার মতো সম্ভাবনাময় ডিসিপ্লিন তৃণমূল পর্যায়ের দীর্ঘমেয়াদি প্রশিক্ষণ কর্মসূচি থেকে বাদ পড়লেও এ কর্মসূচিতে অনেক অজনপ্রিয় খেলাও অন্তভুক্ত করা হয়েছে।

দীর্ঘমেয়াদি প্রশিক্ষণ কর্মসূচির আওতায় স্থান পেয়েছে আরচারি, কাবাডি, শ্যুটিং, ভলিবল, ভারোত্তোলন, হ্যান্ডবল, টেনিস, বাস্কেটবল, সাইক্লিং, সুইমিং, কারাতে, উশু ও তায়কোয়ানদো- এই ১৩টি খেলা।

বিশেষ এই প্রশিক্ষণ কর্মসূচির মধ্যে উশু, কারাতে ও তায়কোয়ানদোর মতো অজনপ্রিয় খেলা স্থান পেলেও জায়গা হয়নি দাবার মতো সম্ভাবনাময় আর জনপ্রিয় খেলাটির।

এ প্রসঙ্গে বাংলাদেশ দাবা ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ শাহাবউদ্দিন শামীম চেসবিডি.কমকে বলেন, দেশের অন্যতম এ খেলাটি বিশেষ প্রশিক্ষণ কর্মসূচিতে না রাখা সত্যিই দূ:খজনক। তিনি জানান, ‘আমি জাতীয় ক্রীড়া পরিষদে চিঠি দেবো যাতে দাবাকে অন্তর্ভূক্ত করা হয়।’

১৩ খেলা বাছাই প্রক্রিয়া কতটা সঠিক হয়েছে সে প্রশ্নের জবাবে যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী মো. জাহিদ আহসান রাসেল বলেছেন, ‘দাবা, অ্যাথলেটিকস নেই সেটা আমার চোখেও পড়েছে। আসলে এই উদ্যোগটা শুরু হয়েছিল আগের ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রীর সময়ে। এ তালিকাটা আমাদের হাতে তৈরি না। তিনি জানান, এখনো সময় আছে তালিকাটা নতুন করে তৈরির। দেখি আমি বিষয়গুলো নিয়ে সংশ্লিষ্টদের সঙ্গে আলোচনা করবো।’ যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী আভাস দিলেন যে ১৩ খেলা প্রাথমিকভাবে বেছে নেয়া হয়েছে বিশেষ প্রশিক্ষণ কর্মসূচির জন্য সেখানে পরিবর্তন আসতে পারে।

চেসবিডি.কম/এমএ